fbpx
You are here
Home > অন্যান্য > ক্যাম্প ছেড়ে চলে গেলেন বাস্কেটবল খেলোয়াড়!

ক্যাম্প ছেড়ে চলে গেলেন বাস্কেটবল খেলোয়াড়!

ক্যাম্প ছেড়ে চলে গেলেন বাস্কেটবল খেলোয়াড়!

কোচের বিরুদ্ধে নির্যাতনের অভিযোগ এনে ক্যাম্প ছেড়ে চলে গেলেন এক বাস্কেটবল খেলোয়াড়। তাসফিয়া চৌধুরি নামের সেই খেলোয়াড় অভিযোগ এনেছেন কোচ সবুজ মিয়ার উপর। তাসফিয়ার বাবা নিজের ব্যক্তিগত ফেসবুক প্রোফাইল থেকে নির্যাতনের সময়ের একটি ভিডিও ক্লিপও প্রকাশ করেন। এদিকে আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে নেপালে শুরু হতে যাচ্ছে সাউথ এশিয়ান গেমস। আর বড় এই ইভেন্টের আগে অনেক খেলোয়াড়ই ক্যাম্প ছাড়ছেন। আর বেশিরভাগ খেলোয়াড়েরাই অভিযোগ আনছেন কোচেদের অনিয়মের উপর।

জানা গেছে কলকাতায় সফরকালে তাসফিয়াকে থাপ্পড় মেরেছিলেন কোচ সবুজ মিয়া। আর ক্যাম্পে ফিরছেন না জানিয়ে ১৮ বছর বয়সি তাসফিয়া বলেন, “শুধু আমাকেই নয়, কোচ অন্য মেয়েদেরও প্রায়ই মারধর করেন। আমি আর ক্যাম্পে ফিরে যাচ্ছি না।” এদিকে আনুষ্ঠানিক ভাবে ফেডারেশনকে এ ব্যাপারে কিছু জানাননি তাসফিয়া। তবে তার পরিবার বিষয়টি সম্পর্কে অবহিত করেছেন ফেডারেশনকে।

এ ব্যাপারে তাসফিয়ার বাবা জানান, “ও যখন কলকাতা থেকে ফিরে আর ক্যাম্পে না যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়, তখন আমরা ওকে বুঝিয়েছি। কিন্তু পরে যখন সেই ভিডিওটি দেখি, তখন আমরা মর্মাহত হয়ে পড়ি। সাথে সাথে বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনকে মেইল করে বিষয়টি জানাই আমরা।” তিনি আরও জানান, “কিছুদিন আগে বিকেএসপিতে অনুশীলনের সময় একদিন ওকে ফোন দিয়েছিলাম আমি। সেদিনও ও কোচের মারধরের কথা জানিয়েছিলো আমাকে।”

অবশ্য এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন কোচ সবুজ মিয়া। তিনি জানান, “আমি ওকে মারিনি। ভুল করেছিল, তাই শুধু তেড়ে গিয়েছিলাম ভয় দেখাতে।” এদিকে বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের সহ সভাপতি শেখ বশির আহমেদ মামুন এই ঘটনার প্রেক্ষিতে জানান, “খেলোয়াড়দের গায়ে হাত তোলার অধিকার কিংবা এখতিয়ার কোনটিই কোচের নেই। উপযুক্ত তথ্যের ভিত্তিতে বিষয়টি প্রমাণিত হলে অবশ্যই তার ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।”

ছবিঃ ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

উপরে