fbpx
You are here
Home > ক্রিকেট > ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ আপডেট!

ইংল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচ আপডেট!

দাপুটে জয়ে ফাইনালে ইংল্যান্ড!

আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ এর দ্বিতীয় সেমিফাইনালে বার্মিংহামের এজবাস্টনে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ৮ উইকেটের দাপুটে জয় দিয়ে ফাইনালের টিকেট পেল ইংল্যান্ড। ৯,৯৬৯ দিন পর অর্থাৎ ১৯৯২ সালের পর এই প্রথম ফাইনালে পৌঁছালো ইংলিশরা। আগামী রবিবার বিশ্বকাপের ১২তম আসরের ফাইনালে ক্রিকেটের তীর্থভূমি লর্ডসে নিউজিল্যান্ডের মুখোমুখি হবে স্বাগতিক ইংল্যান্ড।

বল হাতে ওকস-রশিদ-আর্চারদের দুর্দান্ত পারফর্ম্যান্সের পর ব্যাট হাতে রয়-বেয়ার্স্ট-রুটদের সামনে আজ রীতিমতোন উড়েই গেছে পাঁচ বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া।  অজিদের দেয়া ২২৪ রানের মামুলি লক্ষ্য বড় উদ্বোধনী জুটিতে ভর করে হাসতে খেলতেই মাত্র ৩৪ ওভারেই অর্থাৎ ১০৭ বল হাতে রেখেই পার করে ইংল্যান্ড।

দুই ওপেনার ছাড়াও আজ রান পেয়েছেন জো রুট ও ইংলিশ দলপতি এইয়ন মরগানও। শেষ পর্যন্ত রুট ৮টি চারের সুবাদে ৪৬ বলে ৪৯ রানে এবং মরগান ৮টি চারের সুবাদে ৩৯ বলে ৪৫ রানে অপরাজিত থাকেন। অজি বোলারদের হয়ে ১টি করে উইকেট তুলে নেন মিচেল স্টার্ক ও প্যাট কামিন্স।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

অস্ট্রেলিয়াঃ ২২৩/১০; ৪৯ ওভার (স্মিথ ৮৫, ক্যারে ৪৬, ম্যাক্সওয়েল ২২, স্টার্ক ২৯; ওকস ৩/২০, আর্চার ২/৩২, উড ১/৪৫, রশিদ ৩/৫৪)

ইংল্যান্ডঃ ২২৬/২*; ৩২.১ ওভার (রয় ৮৫, বেয়ার্স্টো ৩৪, রুট ৪৯*, মরগান ৪৫*; স্টার্ক ১/৭০, কামিন্স ১/৩৪)

ফলাফলঃ ইংল্যান্ড ১০৭ বল হাতে রেখে ৮ উইকেটে জয়ী

ম্যান অব দ্যা ম্যাচঃ ক্রিস ওকস (ইংল্যান্ড)


স্টার্কের রেকর্ডে ব্রেক থ্রু পেল অস্ট্রেলিয়া!

স্টার্কের রেকর্ডে ব্রেক থ্রু পেল অস্ট্রেলিয়া!
স্টার্কের রেকর্ডে ব্রেক থ্রু পেল অস্ট্রেলিয়া!

দুই ইংলিশ ওপেনার জেসন রয় ও জনি বেয়ার্স্টোর দুর্দান্ত সূচনায় জয়ের সুবাস পাচ্ছে ইংল্যান্ড। প্রথমে ধীরজ শুরু করলেও কিছুক্ষণ পরই স্ট্রোকের ফুলঝুড়ি বেরোতে থাকে রয় ও বেয়ার্স্টোর ব্যাট থেকে। যার সুবাদে মাত্র ১৬তম ওভারে তাঁরা তুলে নেন দলীয় শতক। তবে ১৮তম ওভারে ব্রেক থ্রু পায় অস্ট্রেলিয়া। স্টার্কের এক অসাধারণ ডেলিভারিতে এলবিডব্লিউ ফাঁদে পরেন জনি বেয়ার্স্টো।  সাজঘরে ফেরার আগে তিনি ৪৩ বলে ৫টি চারের সুবাদে ৩৪ রান করেন। তবে এই উইকেটের সুবাদে বিশ্বকাপে ২৭ উইকেট শিকারের অনন্য রেকর্ড গড়লেন স্টার্ক। স্বদেশী কিংবদন্তি পেসার গ্ল্যান ম্যাকগ্রার ২০০৭ সালে করা এক মৌসুমে সর্বোচ্চ ২৬ উইকেট নেওয়ার বিরল কীর্তি ভেঙ্গে দিলেন মিচেল স্টার্ক।

এরপর সৌভাগ্য বশত দ্বিতীয় উইকেটের দেখাও পায় অস্ট্রেলিয়া। ২০তম ওভারে আম্পায়ার কুমার ধার্মাসিনহার ভুল সিদ্ধান্তে আউট হয়ে সাজঘরে ফিরে যান অজি বোলারদের উপর রীতিমতোন তান্ডব চালানো জেসন রয়। মাত্র ৫০ বলে এবারের বিশ্বকাপের ৬ ম্যাচে নিজের পঞ্চম ফিফটি তুলে ফেলেছেন ইংলিশ ওপেনার জেসন রয়। কামিন্সের করা এক ওয়াইড বলে আম্পায়ার তাকে আউট ঘোষণা করেন। কিন্তু আগে রিভিউ শেষ হয়ে যাওয়ায় তিনি সাজঘরে ফিরে যেতে বাধ্য হন। ভুল সিদ্ধান্তে সাজঘরে ফেরার আগে তিনি ৯টি চার ও ৫টি ছয়ের সুবাদে মাত্র ৬৫ বলে ৮৫ রান করেন। এই প্রতিবেদন লেখা অবধি ইংল্যান্ডের সংগ্রহ ২২ ওভার শেষে ২ উইকেট হারিয়ে ১৫৩ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

ইংল্যান্ডঃ ১৫৩/২*; ২২ ওভার (রয় ৮৫, বেয়ার্স্টো ৩৪, রুট ২২*, মরগান ১*; স্টার্ক ১/৫৪, কামিন্স ১/২৬)

অস্ট্রেলিয়াঃ ২২৩/১০; ৪৯ ওভার (স্মিথ ৮৫, ক্যারে ৪৬, ম্যাক্সওয়েল ২২, স্টার্ক ২৯; ওকস ৩/২০, আর্চার ২/৩২, উড ১/৪৫, রশিদ ৩/৫৪)


ওপেনিং জুটিতে দুর্দান্ত শুরু ইংল্যান্ডের!

ওপেনিং জুটিতে দুর্দান্ত শুরু ইংল্যান্ডের!
ওপেনিং জুটিতে দুর্দান্ত শুরু ইংল্যান্ডের!

আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০১৯ এর দ্বিতীয় সেমিফাইনালে বার্মিংহামের এজবাস্টনে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়ার দেয়া ২২৪ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে বিচক্ষণ শুরু করেন দুই ইংলিশ ওপেনার জেসন রয় ও জনি বেয়ার্স্টো। দুই অজি পেসার জেসন রেহরেন্ডর্ফ, মিচেল স্টার্ক ও প্যাট কামিন্সের বল দেখে শুনে খেলতে থাকেন এই দুই ডানহাতি ব্যাটসম্যান। তবে প্রথমে ধীরজ শুরু করলেও কিছুক্ষণ পরই স্ট্রোকের ফুলঝুড়ি বেরোতে থাকে রয় ও বেয়ার্স্টোর ব্যাট থেকে। যার সুবাদে মাত্র ১০ম ওভারে তাঁরা তুলে নেন দলীয় অর্ধশতক। এই প্রতিবেদন লেখা অবধি ইংল্যান্ডের সংগ্রহ ১০ ওভার শেষে বিনা উইকেট হারিয়ে ৫০ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

ইংল্যান্ডঃ ৫০/০*; ১০ ওভার (রয় ২৭*, বেয়ার্স্টো ২০*; স্টার্ক ০/২৩, রেহরেন্ডর্ফ ০/২০, কামিন্স ০/৬)

অস্ট্রেলিয়াঃ ২২৩/১০; ৪৯ ওভার (স্মিথ ৮৫, ক্যারে ৪৬, ম্যাক্সওয়েল ২২, স্টার্ক ২৯; ওকস ৩/২০, আর্চার ২/৩২, উড ১/৪৫, রশিদ ৩/৫৪)


ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২২৩ রানে গুটিয়ে গেলো অস্ট্রেলিয়া!

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২২৩ রানে গুটিয়ে গেলো অস্ট্রেলিয়া!
ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ২২৩ রানে গুটিয়ে গেলো অস্ট্রেলিয়া!

বিশ্বকাপে আজ দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হয়েছে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। বার্মিংহ্যামের এজবাস্টনে অনুষ্ঠিত হওয়া এই ম্যাচে টসে জিতে আগে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন অজি অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। আর ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই চাপে পড়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারের প্রথম বলেই জোফরা আর্চারের বলে এলবিডব্লিউ হরে ফিরে যান অধিনায়ক ফিঞ্চ। পরের ওভারে ডেভিড ওয়ার্নারও ফিঞ্চের পথ ধরেন। দলীয় ১০ রানে ক্রিস ওকসের বলে স্লিপে বেয়ারস্টোর হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান তিনি। খাজার পরিবর্তে আজ একাদশে সুযোগ পেয়েছিলেন হ্যান্ডসকম্ব। কিন্তু কিছু বুঝে ওঠার আগেই ওকসের বলে বোল্ড হয়ে ফিরে যেতে হয় তাকেও।

দ্রুত ৩ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে যাওয়া অস্ট্রেলিয়াকে টেনে তোলেন স্টিভ স্মিথ এবং অ্যালেক্স ক্যারে। দুজন মিলে ১০৯ রানের জুটি গড়েন। এর মধ্যে স্মিথ তুলে নেন নিজের অর্ধশতক। তবে স্মিথ পারলেও পারেননি ক্যারে। ইনিংসের ২৮ তম ওভারে ব্যক্তিগত ৪৬ রানে ভিন্সের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যেতে হয় তাকে। তাকে সাজঘরে ফেরান আদিল রশিদ। ১ বল পরেই ক্রিজে নতুন আসা স্টোয়নিসকেও সাজঘরে ফেরান রশিদ। এর পরে ম্যাক্সওয়েলকে সাথে এগিয়ে যেতে থাকেন স্মিথ। কিন্তু স্মিথ-ম্যাক্সওয়েল জুটি ৩৯ রান তুলতে না তুলতেই ব্রেক থ্রু পায় ইংল্যান্ড। দলীয় ১৫৭ রানে আর্চারের বলে মরগানের হাতে ক্যাচ দিয়ে সাজঘরে ফেরেন ম্যাক্সওয়েল। আউট হওয়ার আগে ১ ছয় ও ২ চারের সুবাদে ২৩ বলে ২২ রান করেন তিনি।

শেষ দিকে মিচেল স্টার্কের সাথে জুটি গড়েন স্মিথ। স্মিথ-স্টার্ক জুটি স্কোরবোর্ডে যোগ করে ৫১ রান। তবে সেঞ্চুরি তোলার আগেই ৪৮ তম ওভারে ব্যক্তিগত ৮৫ রানে রানআউট হয়ে ফিরে যান স্মিথ। পরের বলে স্টার্কও ফিরে যান কট বিহাইন্ড হয়ে। ক্রিস ওকস তুলে নেন নিজের তৃতীয় উইকেট। শেষ অবধি ৪৯ ওভারে ১০ উইকেট হারিয়ে ২২৩ রান তুলতে সক্ষম হয় অস্ট্রেলিয়া।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

অস্ট্রেলিয়াঃ ২২৩/১০; ৪৯ ওভার (স্মিথ ৮৫, ক্যারে ৪৬, ম্যাক্সওয়েল ২২, স্টার্ক ২৯; ওকস ৩/২০, আর্চার ২/৩২, উড ১/৪৫, রশিদ ৩/৫৪)


রশিদের জোড়া আঘাতে ফের বিপাকে অস্ট্রেলিয়া!

রশিদের জোড়া আঘাতে ফের বিপাকে অস্ট্রেলিয়া!
রশিদের জোড়া আঘাতে ফের বিপাকে অস্ট্রেলিয়া!

দ্রুত ৩ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে যাওয়া অস্ট্রেলিয়াকে পথ দেখাচ্ছিলেন স্টিভ স্মিথ এবং অ্যালেক্স ক্যারে। দুজন মিলে ১০৯ রানের জুটি গড়েন। এর মধ্যে স্মিথ তুলে নেন নিজের অর্ধশতক। তবে স্মিথ পারলেও পারেননি ক্যারে। ইনিংসের ২৮ তম ওভারে ব্যক্তিগত ৪৬ রানে ভিন্সের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যেতে হয় তাকে। তাকে সাজঘরে ফেরান আদিল রশিদ। ১ বল পরেই ক্রিজে নতুন আসা স্টোয়নিসকেও সাজঘরে ফেরান রশিদ। তবে ক্রিজে এখনও অপরাজিত আছেন স্মিথ। ৫ চারের সুবাদে ৮৭ বলে ৬৩ রানে ব্যাট করছেন তিনি। তাকে যোগ্য সঙ্গ দিচ্ছেন ২১ বলে ২১ রান করা ম্যাক্সওয়েল। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ৩৪ ওভার শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৫ উইকেট হারিয়ে ১৫২ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

অস্ট্রেলিয়াঃ ১৫২/৫*; ৩৪ ওভার (ওয়ার্নার ৯, ফিঞ্চ ০, স্মিথ ৬৩*, হ্যান্ডসকম্ব ৪, ক্যারে ৪৬, স্টোয়নিস ০, ম্যাক্সওয়েল ২১*, ওকস ২/১৬, আর্চার ১/১১, স্টোকস ০/২২, উড ০/২০, প্লাঙ্কেট ০/২৪, রশিদ ২/৪৯)


শুরুর ধাক্কা সামলে উঠছে অস্ট্রেলিয়া!

শুরুর ধাক্কা সামলে উঠছে অস্ট্রেলিয়া!

দ্রুত ৩ উইকেট হারিয়ে বিপাকে পড়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। সেখান থেকে অস্ট্রেলিয়াকে টেনে তোলেন স্টিভ স্মিথ এবং অ্যালেক্স ক্যারে। এরই মধ্যে দুজনের জুটি ৫০ ছাড়িয়েছে। স্মিথ ব্যাট করছেন ব্যক্তিগত ৪২ রানে। তাকে যোগ্য সঙ্গ দিচ্ছেন ৩৭ রানে ব্যাট করা ক্যারে। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ২৪ ওভার শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৩ উইকেট হারিয়ে ৯৮ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

অস্ট্রেলিয়াঃ ৯৮/৩*; ২৪ ওভার (ওয়ার্নার ৯, ফিঞ্চ ০, স্মিথ ৪২*, হ্যান্ডসকম্ব ৪, ক্যারে ৩৭*, ওকস ২/১৬, আর্চার ১/১১, স্টোকস ০/১০, উড ০/২০, প্লাঙ্কেট ০/১৯, রশিদ ০/১৯)


ইংলিশ বোলিং তোপে চাপে অস্ট্রেলিয়া!

ইংলিশ বোলিং তোপে চাপে অস্ট্রেলিয়া!
ইংলিশ বোলিং তোপে চাপে অস্ট্রেলিয়া!

বিশ্বকাপে আজ দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হয়েছে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। বার্মিংহ্যামের এজবাস্টনে অনুষ্ঠিত হওয়া এই ম্যাচে টসে জিতে আগে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন অজি অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। আর ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই চাপে পড়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারের প্রথম বলেই জোফরা আর্চারের বলে এলবিডব্লিউ হরে ফিরে যান অধিনায়ক ফিঞ্চ। পরের ওভারে ডেভিড ওয়ার্নারও ফিঞ্চের পথ ধরেন। দলীয় ১০ রানে ক্রিস ওকসের বলে স্লিপে বেয়ারস্টোর হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরে যান তিনি। খাজার পরিবর্তে আজ একাদশে সুযোগ পেয়েছিলেন হ্যান্ডসকম্ব। কিন্তু কিছু বুঝে ওঠার আগেই ওকসের বলে বোল্ড হয়ে ফিরে যেতে হয় তাকেও। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ১০ ওভার শেষে অস্ট্রেলিয়ার সংগ্রহ ৩ উইকেট হারিয়ে ২৭ রান।

সংক্ষিপ্ত স্কোরকার্ডঃ

অস্ট্রেলিয়াঃ ২৭/৩*; ১০ ওভার (ওয়ার্নার ৯, ফিঞ্চ ০, স্মিথ ৪*, হ্যান্ডসকম্ব ৪, ক্যারে ৯*, ওকস ২/১৫, আর্চার ১/১১)


টস জিতে ব্যাটিংয়ে অস্ট্রেলিয়া!

টস জিতে ব্যাটিংয়ে অস্ট্রেলিয়া!
টস জিতে ব্যাটিংয়ে অস্ট্রেলিয়া!

বিশ্বকাপে আজ দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া। বার্মিংহ্যামের এজবাস্টনে অনুষ্ঠিত হচ্ছে আজকের এই ম্যাচ। সেখানে টসে জিতে আগে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন অজি অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। দুই দলের ক্রিকেটীয় দ্বৈরথ চলছে বহুকাল ধরে। তাই বলাই বাহুল্য ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে দুই দলের কেউই কাউকে ছাড় দিবে না।

আগের ম্যাচের একাদশ থেকে ইংলিশ দলে কোন পরিবর্তন আসেনি। তবে অস্ট্রেলিয়া দলে এসেছে একটি পরিবর্তন। ইনিজুরির কারণে একাদশ থেকে বাদ পড়েছেন উসমান খাজা। তার পরিবর্তে আজ একাদশে সুযোগ পেয়েছেন পিটার হ্যান্ডসকম্ব।

ইংল্যান্ড একাদশঃ

ইয়ন মরগান (অধিনায়ক), জেসন রয়, জনি বেয়ারস্টো, জো রুট, জস বাটলার, ক্রিস ওকস, বেন স্টোকস, লিয়াম প্লাঙ্কেট, আদিল রশিদ, মার্ক উড ও জোফরা আর্চার।

অস্ট্রেলিয়া একাদশঃ

অ্যারন ফিঞ্চ (অধিনায়ক), ডেভিড ওয়ার্নার, পিটার হ্যান্ডসকম্ব, স্টিভ স্মিথ, গ্ল্যান ম্যাক্সওয়েল, মার্ক স্টোইনিস, অ্যালেক্স ক্যারে, প্যাট কামিন্স, জেসন বেহরেনডর্ফ, মিচেল স্টার্ক, নাথান লায়ন।

ছবিঃ ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

উপরে