fbpx
You are here
Home > ফুটবল > অন্তিম মুহুর্তের গোলে নকআউট পর্ব নিশ্চিত জুভেন্টাসের!

অন্তিম মুহুর্তের গোলে নকআউট পর্ব নিশ্চিত জুভেন্টাসের!

অন্তিম মুহুর্তের গোলে নকআউট পর্ব নিশ্চিত জুভেন্টাসের!

এর আগে ঘরের মাঠে লোকোমোটিভ মস্কোকে হারাতে কঠিন পরীক্ষা দিতে হয়েছিল জুভেন্টাসকে। আর মস্কোতে যে কাজটা আরও কঠিন হবে তা আগে থেকেই আন্দাজ করা গিয়েছিল। গতরাতের ম্যাচে সেই আন্দাজ সত্যও হলো। ঘরের মাঠে রীতিমতো অপ্রতিরোধ্য দূর্গ গড়ে তুলেছিল লোকোমোটিভ। তবে শেষ পর্যন্ত ডগলাস কস্তার অন্তিম মুহুর্তের গোলে সেই দূর্গ ভেঙ্গে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে জুভেন্টাস। আর নিশ্চিত করেছে চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ১৬।

প্রতিপক্ষের মাঠে শুরুটা দারুণ করেছিল জুভেন্টাস। ম্যাচের ৩ মিনিটের মাথায় অ্যারোন রামসির গোলে এগিয়ে যায় তুরিনের বুড়িরা। রোনালদোর ফ্রি-কিক নিয়ন্ত্রণে নিতে ভুল করেন লোকোমোটিভ গোলরক্ষক গিলের্মে। গোল লাইনের একেবারে সামনে থেকে আলতো টোকায় বল জালে পাঠিয়ে দলকে লিড এনে দেন সাবেক আর্সেনাল মিডফিল্ডার রামসি। অবশ্য জুভেন্টাসের এই লিড বেশিক্ষণ টিকতে পারেনি।

ম্যাচের ১২তম মিনিটে সমতায় ফেরে লোকোমোটিভ। মাঠের বাঁপ্রান্ত থেকে রিবাসের ক্রসে ভেসে আসা বলে অ্যালেক্সি মিরানচুক হেড করলে তা বারপোস্টে লেগে প্রতিহত হয়। কিন্তু ফিরতি বল জালে জড়াতে ভুল করেননি মিরানচুক। প্রথমার্ধে আরও কিছু সুযোগ পেলেও গোল করতে ব্যর্থ হয়েছে দুই দলই। শেষ পর্যন্ত ১-১ সমতায় বিরতিতে যায় দুই দল।

দ্বিতীয়ার্ধের প্রথম থেকেই অবশ্য লোকোমোটিভকে চেপে ধরেছিল জুভেন্টাসই। মাঝ মাঠটা দখলে নিয়েছিলেন রামসি-খেদিরারা। এদিকে কাউন্টার অ্যাটাকে দানিলো-সান্দ্রোরাও কাঁপিয়ে দিচ্ছিলেন লোকোমোটিভের রক্ষণকে। তবে মুহুর্মুহু আক্রমণের পরও গোলের দেখা পাচ্ছিল না তুরিনের বুড়িরা। শেষ পর্যন্ত দ্বিতীয়ার্ধের যোগ করা সময়ের দ্বিতীয় মিনিটে মাঠের বাঁপ্রান্ত থেকে দৌড়ে ডিবক্সের ভেতর ঢুকে পড়েন কস্তা। গঞ্জালো হিগুয়াইনের সাথে ওয়ান-টু করে বামপায়ের আলতো টোকায় বল জালে জড়িয়ে জুভেন্টাসের জয় নিশ্চিত করেন ব্রাজিলিয়ান এই ফরোয়ার্ড।

ছবিঃ ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

উপরে